1. atikurrahman0.ar@gmail.com : MD : MD Atikurrahaman
  2. Mijankhan298@gmail.com : Mijankhan :
  3. mbbrimon@gmail.com : MBB Rimon : MBB Rimon
  4. shamimulislamtanvirrana@gmail.com : MD Tanvir Islam : MD Tanvir Islam
  5. shafiulislamtanzil@gmail.com : Safiul Islam Tanzil : Safiul Islam Tanzil
 

সামরিক অভিধান থেকে ‘মার্শাল ল’ শব্দ বাদ দিতে বললেন প্রধানমন্ত্রী কিন্তু কেন?

  • প্রকাশিত: ০৫:১৯ am | মঙ্গলবার ৮ সেপ্টেম্বর, ২০২০
  • ১৭৩ বার পঠিত

বিজয়ের বাংলা:
সামরিক অভিধান থেকে ‘মার্শাল ল’ শব্দ বাদ দিতে বললেন প্রধানমন্ত্রী কিন্তু কেন? পড়ুন বিস্তারিত।দেশ ও স’শস্ত্র বাহিনীর কোনো কল্যাণ বয়ে আনতে পারে না বলে সামরিক অভিধান থেকে ‘মার্শাল ল’ শব্দটি বাদ দেয়ার

আহ্বান জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।
সোমবার গণভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে স’শস্ত্র বাহিনী নির্বাচনী পর্ষদ ২০২০ এর উদ্বোধনকালে এ আহ্বান

জানান তিনি।শেখ হাসিনা বলেন, ‘মার্শাল ল’ র’ক্তপাত ছাড়া দেশ এবং স’শস্ত্র বাহিনীর কোনো কল্যাণ বয়ে আনতে পারে না। তাই, ‘সামরিক অভিধান’ থেকে আমাদের

‘মার্শাল ল’ শব্দটি বাদ দেয়া উচিত।’তিন বাহিনীর প্রধান এবং অন্যান্য সেনা, নৌ এবং বিমান বাহিনীর ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা তাদের নিজ নিজ সদরদফতর থেকে এ সভায়

সংযুক্ত ছিলেন।জিয়াউর রহমানের সামরিক শাসন আমলের ১৯টি ক্যু-এর কথা উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘ওই সময়ে বহ

সামরিক কর্মকর্তা ও সৈনিককে হত্যা করা হয়েছে।’ওই সময় সশস্ত্র বাহিনীর এতো বিপুল সংখ্যক কর্মকর্তা এবং সৈন্যকে হ’ত্যা

করা হয়েছে যে, যু’দ্ধেও এত বিপুল সংখ্যক সৈন্য নিহ’ত হয়নি উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘আমরা (স’শস্ত্র বাহিনীতে) আর কোনো ছেলে হারা পিতা বা পিতা হারা

ছেলের কান্না শুনতে চাই না।’প্রধানমন্ত্রী বলেন, সররকার দেশের সার্বভৌমত্ব, সীমান্ত সুরক্ষায় স’শস্ত্র বহিনীকে আরো আধুনিক এবং সময়োপযোগী হিসেবে গড়ে

তোলার লক্ষ্যকে সামনে রেখে কাজ করে যাচ্ছে।তিনি বলেন, স’শস্ত্র বাহিনীর সদস্যরা যাতে সব ধরণের প্রশিক্ষণ নিতে পারে সে জন্য সরকার বিশেষায়িত শিক্ষা প্রতিষ্ঠান

গড়ে তুলছে।শেখ হাসিনা বলেন, সরকার অত্যাধুনিক জ্ঞানসম্পন্ন এক আধুনিক স’শস্ত্র বাহিনী গড়ে তুলতে চায় যাতে এ বাহিনীর

সদস্যরা জাতিসঙ্ঘ শান্তিরক্ষা মিশনের অধীনে কাজ করতে পারে।সশ’স্ত্র বাহিনীর কর্মকর্তাদের পদোন্নতি দেয়ার বিষয়ে বলতে গিয়ে প্রধানমন্ত্রী স’শস্ত্র বাহিনী নির্বাচনী

পর্ষদকে যৌক্তিক উপায়ে যোগ্য কর্মকর্তাদের পদোন্নতি দেয়ার আহ্বান জানান।শেখ হাসিনা বলেন, ভবিষ্যতে বাংলাদেশকে সঠিক পথে

এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার জন্য দেশপ্রেমিক এবং মু’ক্তিযু’দ্ধের চেতনায় বিশ্বাসী কর্মকর্তাদের এ দায়িত্ব পাওয়া উচিত।সভায় গণভবন থেকে