1. atikurrahman0.ar@gmail.com : বিজয়ের বাংলা : বিজয়ের বাংলা
  2. Mijankhan298@gmail.com : Bijoyerbangla News : Bijoyerbangla News
  3. rabbimollik2002@gmail.com : Bijoyerbangla News : Bijoyerbangla News
  4. msthoney406@gmail.com : বিজয়ের বাংলা : বিজয়ের বাংলা
  5. abur9060@gmail.com : বিজয়ের বাংলা : বিজয়ের বাংলা
সাপ পালছিলাম দুধ দিয়া, এরপর ‘বেইমান’ বললেন মমতাজ - ২৪ ঘন্টাই খবর

সাপ পালছিলাম দুধ দিয়া, এরপর ‘বেইমান’ বললেন মমতাজ

  • আপডেট করা হয়েছে: বৃহস্পতিবার, ২০ অক্টোবর, ২০২২
  • ২১৭ বার পঠিত

গত কয়েকদিন ধরেই সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে বেশ কিছু বিষয় নিয়ে স্ট্যাটাস দিচ্ছেন মানিকগঞ্জ-২ আসনের (সিংগাইর-হরিরামপুর) সংসদ সদস্য পপ সম্রাজ্ঞী মমতাজ বেগম। তার সেই স্ট্যাটাস নিয়ে ভক্তদের মধ্যেও নানা প্রশ্নের সৃষ্টি হচ্ছে।

কিছুদিন আগে কণ্ঠশিল্পী আসিফ আকবরের ছেলের বিয়ের দাওয়াত না পেয়ে হতাশায় একটি ‘মজাদার’ পোস্ট করেন, যা নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে বেশ চর্চা হয়। এরপর গত সোমবার মানিকগঞ্জ-২ আসনের এ সংসদ সদস্য ফেসবুকে লেখেন, ‘সাপ পালছিলাম দুধ দিয়া।’ তার সেই পোস্টের তলায় অনেকে প্রশ্ন করেছেন, ‘কে সেই সাপ?’

কেউ কেউ বিশ্বাসঘাতক থেকে কৌশলি হতে এবং সতর্ক থাকতে পরামর্শ দেন তাকে। অনেকে আবার পোস্টটি নিয়ে মজা করেন। কেউ প্রশ্ন রাখেন – দুধের সঙ্গে কলা দিয়েছিলেন কিনা? কণ্ঠশিল্পী আঁখি

আলমগীর লেখেন, ‘দিন শেষে যে পালে তার দোষ।’ সেই পোস্ট নিয়ে আলোচনার রেশ কাটার আগেই আরেকটি ‘রহস্যময়’ স্ট্যাটাস দিয়েছেন এমপি মমতাজ। এবার তিনি লিখলেন, ‘আলহামদুলিল্লাহ, বেইমানদের মুখে ঝাড়ুর বাড়ি।’

কাদেরকে ‘বেইমান’ বললেন, মমতাজ তা রহস্য রেখে দিয়েছেন। তবে সেই রহস্য ভেদ হোক বা না হোক, মমতাজের শুভাকাঙ্ক্ষিরাও মন্তব্যে ‘আলহামদুলিল্লাহ’ লিখছেন। অনেকের মতে কণ্ঠশিল্পী মমতাজ বেগম সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে বেশ সরব। প্রায়ই ফেসবুকে ব্যক্তিগত অভিজ্ঞতা, অনুভূতি এসব নিয়ে নানা রকম পোস্ট করেন তিনি।

এর আগে গায়ক আসিফ আকবরের বড় ছেলে রণ’র বিয়েতে নিমন্ত্রণ না পেয়ে মমতাজ ফেসবুকে লেখেন, ‘হায়রে রাজনীতি! আজকে যদি এমপি না হতাম, তাহলে একটা বিয়ের দাওয়াত খেতে পারতাম।’ সেই সঙ্গে কান্নার ইমোজিও জুড়িয়ে দেন এই গায়িকা।

মমতাজের সেই পোস্টের কমেন্টে আসিফ লেখেন, ‘প্রিয় মম (মমতাজ এমপি), তুমি আমি সেরা পারিবারিক বন্ধু। এখানে কোনদিনই রাজনীতি প্রবেশের সুযোগ নেই। মাত্র চারদিন সময় পেয়েছি ছেলের বিয়ের জন্য। সবকিছুই হুট করে হয়ে গেছে।

তোমাকে কন্টাক্ট করার মত সরাসরি যোগাযোগের ব্যবস্থা আমার কাছে নাই। তবে তোমাকে মন থেকে ফিল করেছি। আমি তোমার সবসময়ের বন্ধু। একদিন সময় দাও বাচ্চাদেরসহ। আমরা বাসায় তোমার সারাজীবন দাওয়াত।’

নিউজটি শেয়ার করুন

এই বিভাগের আরো খবর পড়ুন
© All rights reserved 2022
Site Developed By Bijoyerbangla.com