1. [email protected] : বিজয়ের বাংলা : বিজয়ের বাংলা
  2. [email protected] : Bijoyerbangla News : Bijoyerbangla News
  3. [email protected] : Bijoyerbangla News : Bijoyerbangla News
  4. [email protected] : বিজয়ের বাংলা : বিজয়ের বাংলা
  5. [email protected] : বিজয়ের বাংলা : বিজয়ের বাংলা
মাত্র পাওয়াঃ ৬ বছরেও শেষ হয়নি প্রধান শিক্ষকের ৪ মাসের ছুটি - ২৪ ঘন্টাই খবর
শিরোনাম:
মাত্র পাওয়াঃ অবশেষে‘সাকিব তার ভুল বুঝতে পেরেছে’ নিজের যোগ্যতা দেখিয়ে প্রথমবারের মতো টি-টোয়েন্টির জায়গা ছিনিয়ে নিলেন এবাদত এইমাত্র পাওয়াঃ পরীক্ষা হলে জালিয়াতি, মিলল ৬টি জাতীয় পরিচয়পত্র চোটের কারণে এশিয়া কাপের দলে অনেকে বাদ পরলেও যে কারণে বাদ পড়লেন না সোহান মাত্র পাওয়াঃ সমুদ্রবন্দরে ৩ নম্বর সতর্ক সংকেত, জলোচ্ছ্বাসের পূর্বাভাস সকলকে ভেলকি দেখিয়ে এশিয়া কাপ দলে স্পেশালিস্ট হয়ে ফিরলেন সাব্বির সদ্য পাওয়াঃ প্রাইভেটকার খাদে পড়ে প্রাণ গেল স্বামী-স্ত্রীর মাত্র পাওয়াঃ অবশেষে‘দেশের মানুষ বেহেশতে আছে’ মন্তব্যের ব্যাখ্যা দিলেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী দীর্ঘ ৩ বছর পর সাব্বিরের জাতীয় দলে ফেরা নিয়ে যা বললেন প্রধান নির্বাচক ব্রেকিং নিউজঃ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান নিয়ে জেলা-উপজেলা কর্মকর্তাদের নতুন নির্দেশনা!

মাত্র পাওয়াঃ ৬ বছরেও শেষ হয়নি প্রধান শিক্ষকের ৪ মাসের ছুটি

  • আপডেট করা হয়েছে: মঙ্গলবার, ২ আগস্ট, ২০২২
  • ৭৭ বার পঠিত

রংপুরের গঙ্গাচড়ায় চার মাসের ছুটি নিয়ে ছয় বছর ধরে অনুপস্থিত উপজেলার মর্ণেয়া ইউনিয়নের লাখেরাজটারী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক নাজমা খাতুন। দীর্ঘদিন ধরে

অনুপস্থিত থেকেও চাকরিতে বহাল রয়েছেন তিনি। দীর্ঘদিন প্রধান শিক্ষক অনুপস্থিত থাকায় বিদ্যালয়ের প্রশাসনিক ও একাডেমিক কার্যক্রম ভেঙে পড়েছে।এদিকে চার মাসের ছুটি

নিয়ে ছয় বছর ধরে যুক্তরাষ্ট্রে অবস্থান করা প্রধান শিক্ষক নাজমা খাতুনকে কারণ দর্শানোর নোটিশ দিয়েছে বিভাগীয় শিক্ষা অধিদপ্তর। রংপুর বিভাগীয়

প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের ্‌ভারপ্রাপ্ত উপ-পরিচালক মুজাহিদুল ইসলাম স্বাক্ষরিত গত ২০ জুলাই ইস্যু করা কারণ দর্শানো ওই নোটিশে বিধিমালা অনুযায়ী কেন চাকরি থেকে

বরখাস্ত করা বা যথোপযুক্ত শাস্তি দেওয়া হবে না তা চিঠি প্রাপ্তির ১০ কার্যদিবসের মধ্যে প্রধান শিক্ষক নাজমা খাতুনকে জবাব দিতে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। এছাড়া আত্মপক্ষ সমর্থনের জন্য ব্যক্তিগত

শুনানি দিতে ইচ্ছুক হলে তা জবাবে উল্লেখ করার জন্য বলা হয়েছে। কারণ দর্শানো ওই নোটিশটি ২৬ জুলাই (মঙ্গলবার) ই-মেইলে পেয়েছেন বলে নিশ্চিত করে উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা নাগমা

সিলভিয়া খান। তিনি সোমবার (১ আগস্ট) দুপুরে বলেন, চিঠি পাওয়ার পর অভিযুক্ত নাজমা খাতুনের পরিবারের লোকজনের সঙ্গে যোগাযোগ করা হয়। ২৭ জুলাই নাজমা খাতুনের শ্বশুর

আজিজুল ইসলাম অফিসে এসে সেই চিঠি নিয়ে গেছেন। জানা যায়, ২০১৫ সালের জানুয়ারি মাসে গঙ্গাচড়া উপজেলার মর্ণেয়া ইউনিয়নের লাখেরাজটারী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রধান শিক্ষক হিসেবে যোগদান করেন নাজমা খাতুন। যোগদানের

দেড় বছর পর চিকিৎসার জন্য ২০১৬ সালের ১২ জুলাই দুই মাসের ছুটি নিয়ে তিনি যুক্তরাষ্ট্র প্রবাসী স্বামীর কাছে যান। সেখানে থাকা অবস্থায় তিনি আরও দুমাসের

ছুটি বাড়িয়ে নেন। এরপর তার ছুটি শেষ হলেও তিনি বিদ্যালয়ে আসেননি এবং ছুটিও নেননি। দীর্ঘদিন ধরে বিদ্যালয়ে অনুপস্থিত থেকেও তিনি চাকরিতে বহাল থাকেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

এই বিভাগের আরো খবর পড়ুন
© All rights reserved 2022
Site Developed By Bijoyerbangla.com