1. atikurrahman0.ar@gmail.com : বিজয়ের বাংলা : বিজয়ের বাংলা
  2. Mijankhan298@gmail.com : Bijoyerbangla News : Bijoyerbangla News
  3. rabbimollik2002@gmail.com : Bijoyerbangla News : Bijoyerbangla News
  4. msthoney406@gmail.com : বিজয়ের বাংলা : বিজয়ের বাংলা
  5. abur9060@gmail.com : বিজয়ের বাংলা : বিজয়ের বাংলা
কলেজ শিক্ষার্থীকে শ্লীলতাহানি করায় পুলিশের দুই সদস্য কারাগারে! - ২৪ ঘন্টাই খবর

কলেজ শিক্ষার্থীকে শ্লীলতাহানি করায় পুলিশের দুই সদস্য কারাগারে!

  • আপডেট করা হয়েছে: রবিবার, ২ অক্টোবর, ২০২২
  • ৯৯ বার পঠিত

কুমিল্লার বুড়িচংয়ে কলেজ শিক্ষার্থীকে শ্লীলতাহানির অভিযোগে বুড়িচং থানার সহকারী উপ-পরিদর্শক (এ.এস.আই) মালেক ও সহযোগী সিএনজি চালক বিল্লালকে গ্রেফতার করে জেল হাজতে প্রেরণ করেছে আদালত। বিষয়টি নিশ্চিত করেন বুড়িচং

থানার ওসি তদন্ত কবির হোসেন। ঘটনাটি ঘটেছে গত সোমবার (১৭ সেপ্টেম্বর) দুপুরে রাজাপুর ইউনিয়নের লড়িবাগ সড়ক মাথায়। এ ঘটনায় ২৫ সেপ্টেম্বর ভূক্তভোগী কলেজ ছাত্রীর পিতা লড়িবাগ গ্রামের শিপন মিয়া বাদী হয়ে মামলা দায়েরের পর তাদেরকে আটক করে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়।

ভূক্তভোগী ও মামলার অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, জেলার বুড়িচং রাজাপুর ইউনিয়নের লড়িবাগ এলাকার স্থানীয় একটি ডিগ্রি কলেজের দ্ধাদশ শ্রেণির ছাত্রী ছদ্মনাম (স্বার্ণা আক্তার )। বাবা মুদি দোকানদার তার মা অসুস্থ থাকায় মা’র জন্য ঔষধ

আনতে বাড়ি থেকে বের হয়ে রাস্তায় গাড়ি না থাকায় পায়ে হেটে লড়িবাগ রাস্তার মাথায় পৌঁছলে একটি সিএনজি অটোরিকশা এসে সামনে দাড়িয়ে সিএনজির ভিতরে থাকা লোকটি গাড়িতে উঠতে বলে সে গাড়িতে থাকা লোকটি পুলিশের পোষাক পরিহিত একারণে নির্ভয়ে সিএনজিতে ওঠে।

সিএনজিতে উঠার পর ঘটে ভিন্ন ঘটনা পুলিশ পরিচয় দেওয়া লোকটি তার শরীরের বিভিন্ন জায়গায় এবং লজ্জাস্থানে স্পর্শ করে। পরে তার সাথে সম্পর্ক রাখলে বিভিন্ন সুযোগ সুবিধা আদায় করে দিবে বলে প্রলোভন দেখায়। দীর্ঘ দুই ঘন্টা বিভিন্ন

জায়গায় ঘুরাফেরা করে তার শরীরের বিভিন্ন স্পর্শকাতর জায়গায় স্পর্শ করে শ্লীলতাহানী করে বাড়ির সামনে নামিয়ে দেয়। এসময় সিএনজিতে থাকা পুলিশ পরিচয় দেয়া লোকটা ও সিএনজি চালক তাকে বলে দেয় যে

সে যদি এবিষয়ে কাউকে কিছু না বলার জন্য ভয়ভীতি দেখায়। এঘটনার পর আশা কলেজে যাওয়া বন্ধ করে দেয়। তাকে তার পরিবার থেকে কলেজে না যাওয়ার কারণ জিগ্যেস করলে এক পর্যায়ে তার পরিবারকে বিষয়টি জানান।

পরবর্তীতে তার এলাকায় ও থানায় খোঁজ খবর নিয়ে জানা যায় সিএনজিতে থাকা লোকটি কুমিল্লা বুড়িচং থানার সহকারী উপ-পরিদর্শক (এএসআই) আব্দুল মালেক ও মো: বিল্লাল হোসেন (৪৪) বুড়িচং উপজেলার

পীর যাত্রাপুর ইউপির কন্ঠনগর গ্রামের সুলতান আহম্মেদের ছেলে। পরে তাদের বিরুদ্ধে ওই শিক্ষার্থী আদালতে একটি মামলা দায়ের করে। পরে পুলিশ সুপার ও আদালতের নির্দেশনায় তাদেরকে গ্রেফতার করে জেল হাজতে প্রেরণ করে।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বুড়িচং থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মারুফ রহমান জানান, তাদেরকে আদালতে হাজির করলে আদালত তাদেরকে জেল হাজতে প্রেরণ করার নির্দেশ প্রদান করেন বলে তিনি জানান।

নিউজটি শেয়ার করুন

এই বিভাগের আরো খবর পড়ুন
© All rights reserved 2022
Site Developed By Bijoyerbangla.com