1. atikurrahman0.ar@gmail.com : MD : MD Atikurrahaman
  2. Mijankhan298@gmail.com : Mijankhan :
  3. mbbrimon@gmail.com : MBB Rimon : MBB Rimon
  4. shamimulislamtanvirrana@gmail.com : MD Tanvir Islam : MD Tanvir Islam
  5. shafiulislamtanzil@gmail.com : Safiul Islam Tanzil : Safiul Islam Tanzil
 
সর্বশেষঃ
এবার নারীদের হিজাব এবং পুরুষের টাকনুর ওপর পোশাক পরে অফিসে আসার নির্দেশ বাবা-মা আমাকে জ’ন্ম দিতে চায়নি,তবুও আমি হয়েচ ! এলোভেরা যেভাবে রাতে মাত্র ৫ মিনিট ব্যবহার করলেই পাবেন ফর্সা, উজ্জল ও দাগমুক্ত ত্বক শ্যাম্পুর সঙ্গে চিনি মেশালে মু’হূর্তেই মিলবে যে আ’শ্চর্য উপকার! ৩৫ হাজার ফুট উঁচুতে মধ্য আকাশে জন্ম নিলো শিশু, আজীবন আকাশ ভ্রমণ ফ্রি ! দাওয়াত ছাড়া বিয়ে খেয়ে আবার উপহার নিয়ে পলায়ন! ভুল করেও এই সব খাবার দ্বিতীয় বার গরম করে খাবেন না হতে পারে বিপদ ! মোরগের হা’তে পুলিশ কর্মকর্তার মৃ’ত্যু! মহানবী (সাঃ) যেভাবে চুল কাটতে নিষেধ করেছেন ! স্বা’মী’কে মা’টি’তে পুঁ’তে রেখে উপ’রে খা’ট বিছি’য়ে ঘুম স্ত্রী’র

আল্লামা শফীর জানাজা সম্পন্ন, জানাজায় মানুষের ঢল অপ্রীতিকর ঘটনা এড়াতে বিজিবির টহল

  • প্রকাশিত: ০৩:৩৯ pm | শনিবার ১৯ সেপ্টেম্বর, ২০২০
  • ৬৯ বার পঠিত

বিজয়ের বাংলা:
আল্লামা শফীর জানাজা সম্পন্ন, জানাজায় মানুষের ঢল অপ্রীতিকর ঘটনা এড়াতে বিজিবির টহল। হেফাজতে ইসলামের আমির আল্লামা আহমদ শফীর নামাজে জানাজা সম্পন্ন হয়েছে।আজ শনিবার দুপুর ২টার দিকে

তার জানাজা অনুষ্ঠিত হয়। জানাজায় ইমামতি করেন তার ছেলে মাওলানা মোহাম্মদ ইউসূফ। জানাজা শেষে মসজিদ সংলগ্ন কবরস্থানে দা’ফন করা হবে দেশের

জ্যেষ্ঠ এ আলেমকে। জানাজায় অংশ নিতে চট্টগ্রামের হাটহাজারীতে মানুষের ঢল নামে। অপ্রীতিকর পরি’স্থিতি এড়াতে জেলার চার

উপজেলায় কাজ করছে ১০ প্লাটুন বিজিবি এবং ০৭ নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটের নেতৃত্বাধীন টহল দল।জানাজার আগে দেওয়া বক্তব্যে মাওলানা মোহাম্মদ ইউসুফ বলেন, বাবা

আমাদের এতিম করে চলে গেছেন। আমার বাবার জন্য সবাই দোয়া করবেন। বাবা দীর্ঘ ৮০ বছর হাটহাজারী মাদ্রাসার খেদমত

করেছেন। এই দীর্ঘ সময়ে তিনি কাউকে কষ্ট দিয়ে থাকলে ক্ষমা করে দেবেন।শুক্রবার সন্ধ্যায় ঢাকার আসগর আলী হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় শেষ নি’শ্বাস ত্যাগ

করেন হেফাজতে ইসলামের প্রতিষ্ঠাতা ও আমির আল্লামা শাহ আহমদ শফী। রাত ১১টার দিকে গেন্ডারিয়ার আসগর আলী হাসপাতাল থেকে ঢাকার ঐতিহ্যবাহী মাদ্রাসা জামিয়া আরাবিয়া ই’মদাদুল উলুম

ফরিদাবাদে আল্লামা শফীর মরদেহ নিয়ে যাওয়া হয়।সেখানে গোসল এবং কা’ফন শেষে ভক্ত অনুসারীদের তার মরদেহ দেখার সুযোগ দেওয়া হয়। মধ্যরাতে তার ম’রদেহ

বহনকারী অ্যাম্বুলেন্স চট্টগ্রামের হাটহাজারী মাদ্রাসার উদ্দেশে রওনা দেয়। শনিবার সকালে সাড়ে ৯টার দিকে র্যা পিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন-র‌্যাবের পাহারায় হাটহাজারী

মাদ্রাসায় এসে পৌঁছায় আল্লামা শফীর মরদেহবাহী অ্যাম্বুলেন্স। এরপর তার মরদেহ ভক্ত এবং অনুসারীদের দেখার জন্য হাটহাজারী মাদ্রাসা প্রাঙ্গণে রাখা হয়।আল্লামা

শফীর মৃত্যুর সংবাদ শুনে দেশের নানা প্রান্ত থেকে শুক্রবার রাত থেকেই তার ভক্ত অনুসারীরা তাকে শেষবারের মতো দেখতে এবং তার জানাজায় অংশ নিতে হাটহাজারী আসতে শুরু করেন। শনিবার সকালে

হাটহাজারীতে মানুষের ঢল নামে। চট্টগ্রাম-হাটহাজারী সড়কে মানুষের চাপ সামলাতে হিমশিম খেতে হয় আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর

সদস্যদের।একপর্যায়ে হাটহাজারী বাস স্ট্যান্ড থেকে যানবাহন চলাচল বন্ধ করে দেওয়া হয়। হাটহাজারী থেকে অক্সিজেন পর্যন্ত যানবাহনের চাপ কয়েকগুন বেড়ে যায়।